আজ বুধবার| ৫ অক্টোবর, ২০২২| ২০ আশ্বিন, ১৪২৯

সখিপুরে স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার পথে ছাত্রীকে ধর্ষণ!

রবিবার, ১১ অক্টোবর ২০২০ | ৬:৩১ অপরাহ্ণ | 6425 বার

সখিপুরে স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার পথে ছাত্রীকে ধর্ষণ!
ফাইল ছবি

শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ উপজেলার চরভাগা ইউনিয়নে স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার পথে ৬ষ্ঠ শ্রেনীর এক ছাত্রীকে (ফাতেমা-১৩) ধর্ষণ করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। গত ৬ অক্টোবর দুপুর ১২টার সময় চরভাগা ইউনিয়নের খুনি কান্দি গ্রাম এ ঘটনা ঘটে। সেখানকার স্থানীয় বাসিন্দা মোস্তফা মালের ছেলে জামাল মাল (২৫) তাকে একটি বসত ঘরে আটকে রেখে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। এ সময় একই গ্রামের বাসিন্দা হরমুজ মালের ছেলে সোহাগ তাকে সহযোগীতা করেছে বলে অভিযোগ উঠেছে। ঘটনার পাঁচ দিন পর রবিবার ভুক্তোভুগী ছাত্রীর পরিবার সখিপুর থানায় তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করা হয়েছে।

Advertisements

ভুক্তভোগীর নানী সাজিয়া বেগম বলেন, গত ৬ অক্টোবর উত্তর তারাবুনিয়া ইউনিয়নের ছুরিরচরের বাসিন্দা এ ছাত্রী (মনির বেপারীর মেয়ে ফাতেমা) বিদ্যালয় থেকে বাড়ি ফেরার পথে এলাকার বখাটে জামাল ও তার বন্ধু সোহাগ তার পথ আটকায়। পরে জামালের চাচা আবুল মালের ঘরে নিয়ে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে জামাল। আর সোহাগ সেখানে সহযোগীতা করে। স্থানীয়রা জানায়, জামাল ও সোহাগ পূর্ব থেকেই বিভিন্ন ধরনের নেশা, ধর্ষণ, চুরি, জুয়া ও মাদক দ্রব্যে সহ বিভিন্ন অপকর্মের সাথে জড়িত। এর আগেও তারা অনেক অপকর্ম সংগঠিত করেছিল, যা স্থানীয়ভাবে সমাধান হয়েছে।

Advertisements

মেয়ের মা (মর্জিনা বেগম) বলেন, অনেক বছর আগে আমার স্বামীর সাথে আমার বিচ্ছেদ হয়েছে। আমি ঢাকায় কাজ করি আর আমার মেয়ে তার নানীর বাড়িতে বড় হয়েছে। ঐদিন ঘটনার পর বিষয়টি প্রকাশ করলে আমার মেয়েকে হত্যার হুমকি দেয় জামাল ও সোহাগ। ছোট মেয়ে হওয়ায় ভয়ে বিষয়টি গোপন রেখেছিল সে। পরে শনিবার সে ঘটনাটি প্রকাশ করে। আমি আমার মেয়ের ধর্ষণ কারীদের যথাযথ বিচার চাই।

Advertisements

ভুক্তভোগীর বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক দাদন মিয়া বকাউল বলেন, আমাদের বিদ্যালয়ের এক ছাত্রীকে ধর্ষণ করা হয়েছে এমন খবর পেয়ে আমি তাদেরকে থানায় পাঠিয়েছি। যারা এর সাথে জড়িত তাদেরকে আইনের আওতায় আনার দাবি জানাই।

Advertisements

এদিকে ঘটনাটি জানাজানি হওয়ার পর থেকেই অভিযুক্ত জামাল ও সোহাগ এলাকা ছেড়ে পালিয়েছে।

Advertisements

এ বিষয়ে সখিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. আসাদুজ্জামান বলেন, এ ঘটনায় একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। আইনানুগ ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে। আসামীদের আটকের চেষ্টা চলছে।

Advertisements
Advertisements

সর্বশেষ  
জনপ্রিয়  
ফেইসবুক পাতা
error: কপি করা নিষেধ !!