আজ শুক্রবার| ২০ মে, ২০২২| ৬ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৯

করোনাঃ সখিপুরের উত্তর তারাবুনিয়া দোকান বন্ধ রাখতে বলায় দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, আহত -১

শুক্রবার, ১০ এপ্রিল ২০২০ | ১১:০৩ অপরাহ্ণ | 2027 বার

করোনাঃ সখিপুরের উত্তর তারাবুনিয়া দোকান বন্ধ রাখতে বলায় দুই গ্রুপের সংঘর্ষ, আহত -১

শরীয়তপুরের ভেদরগঞ্জ উপজেলার উত্তর তারাবুনিয়া ইউনিয়নের ছুরিরচর বাজারে দোকান বন্ধ রাখতে বলাকে কেন্দ্র করে দুই গ্রুপের সংঘর্ষ হয়েছে। শুক্রবার সন্ধ্যায় স্থানীয় বেপারী ও মান্দ গ্রুপের মধ্যে এ সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সময় আব্দুর রহমান (৫৫) নামে এক ব্যক্তি আহত হয়। সে আলামিন নামে এক মুদি দোকানদারের বাবা। পরে সখিপুর থানা পুলিশ সদস্যরা এলে বিষয়টি নিয়ন্ত্রনে আসে।

Advertisements

স্থানীয়রা জানায়, করোনার এ পরিস্থিতিতে পুলিশ প্রশাসনের চোখ ফাঁকি দিয়ে ছুরিরচর বাজারে প্রতিনিয়তই ব্যপক জনসমাগম ঘটে। পুলিশ আসলে লোক সমাগম কমে, আবার চলে গেলে বেড়ে যায়। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় সচেতন সমাজ খুবই শঙ্কিত রয়েছে। পরে শুক্রবার সন্ধ্যায় আলামিন নামে এক দোকানদারের দোকান বন্ধ করতে বললে স্থানীয় সাবেক মেম্বার বালা মাহমুদের সাথে তার বাকবিতন্ডা হয়। এক পর্যায়ে তা বংগত কোন্দলে রুপ নেয় ও সংঘর্ষ হয়।

Advertisements

আহতের ছেলে মুদি দোকানদার আলামিন বলেন, অন্য সব দোকান খোলা থাকলেও বালা মাহমুদ একমাত্র আমার দোকান বন্ধ রাখতে বলে। আমি প্রতিবাদ করায় তারা আমার বাবা ও আমার উপর হামলা করেছে তারা।

Advertisements

কিন্তু সাবেক মেম্বার বালা মাহমুদ বলেন, প্রশাসন নির্দেশ দিয়েছে সব দোকান বন্ধ রাখতে। সে অনুযায়ী সব দোকান বন্ধ থাকলেও আলামিনের দোকান খোলা ছিল। পরে এলাকার স্বার্থে আমি তাকে দোকন বন্ধ রাখতে বলায় ক্ষিপ্ত হয়ে, তার বাবা, সে এবং বংশের লোকজন আমার উপর হামলা করে। আমরা তাদের উপর কোন হামলা করতে যাইনি

Advertisements

উত্তর তারাবুনিয়ায় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ইউনুস সরকার বলেন, ঐ এলাকার লোকজনকে অনেকবার সচেতন করেছি। কিন্তু তারা পুলিশ, প্রশাসন, চেয়ারম্যান, মেম্বার কারো কথাই শোনেনা।

Advertisements

এ বিষয়ে সখিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. এনামুল হক বলেন, পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি সামাল দিয়েছে। এলাকা নিয়ন্ত্রনে রয়েছে।

Advertisements
Advertisements

সর্বশেষ  
জনপ্রিয়  
ফেইসবুক পাতা
error: কপি করা নিষেধ !!